দেশে ন্যায়বিচার নেই এটা প্রমাণিত: সেলিমা রহমান

রাজনীতি

নিউজ মিডিয়া ২৪: ঢাকা: বরগুনায় রিফাতকে কুপিয়ে হত্যাকারীদের গ্রেফতারে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা দেশে যে কোনো ন্যায়বিচার নেই তা প্রমাণ করে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য বেগম সেলিমা রহমান।
আজ শুক্রবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরাম কর্তৃক আয়োজিত ‘প্রতিহিংসার রাজনীতি ন্যায়বিচার এবং বেগম খালেদা জিয়া’ শীর্ষক মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন।
সেলিমা রহমান বলেন, প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন। কেন তিনি নির্দেশ দিবেন? আইনশৃঙ্খলা বাহিনী কোথায়? আইনশৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্বশীলরা কোথায় গেলেন? যাদের দায়িত্ব তারা কেন পালন করছেন না? এর মানে দেশে ন্যায়বিচার নেই।
সেলিমা রহমান আরও বলেন, সবাই দেখেছেন বরগুনায় কীভাবে প্রকাশ্যে দিবালোকে কুপিয়ে রিফাতকে হত্যা করা হয়েছে। সাধারণ মানুষও এগিয়ে আসেনি। পুলিশ তো আসেইনি। আজকে মূল্যবোধ হারিয়ে গেছে। ডিজিটাল বাংলাদেশের নামে, বড় প্রজেক্টের নামে ন্যায়বিচার আড়াল হয়ে গেছে। এখনো সাগর-রুনির বিচার হয়নি। কারণ বিচারহীনতা। বিচারব্যবস্থা শেষ করে দিয়েছে সরকার। তারা দুর্নীতি দিয়ে বড় হওয়ার পথে আছে।
তিনি বলেন, গত দশ বছরের কথা বাদ দিলাম। গত এক বছরে যেসব ঘটনা ঘটেছে তার কোনো বিচার হয়নি। কারণ ন্যায়বিচার নেই।
তিনি আরও বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির মাধ্যমে দেশে ন্যায়বিচার ও গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করতে হবে। খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। তার জন্য প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। তার জন্য কথা বলতে হবে।
নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের উপদেষ্টা হাজী মো: মাসুক মিয়ার সভাপতিত্বে এবং নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের সাধারণ সম্পাদক এম জাহাঙ্গীর আলমের সঞ্চালনায় মতবিনিময় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন, বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মুহাম্মদ রহমতুল্লাহ, বেগম বিলকিস ইসলাম, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা ফরিদ উদ্দিন প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *