ঊর্ধ্বতন নেতৃত্বের প্রতি আস্থা রেখে দায়িত্ব পালন করুন: সেনাপ্রধান

জীবনযাপন

নিউজ মিডিয়া ২৪:  সিলেট : মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী হয়ে প্রশিক্ষণের মাধ্যমে সুশৃংখল, দক্ষ ও যোগ্য হিসেবে গড়ে উঠার পাশাপাশি মহান স্বাধীনতা রক্ষায় সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারের জন্য সর্বদা প্রস্তুত থাকতে সেনাসদস্যদের প্রতি আহবান জানিয়েছেন সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আবু বেলাল মোহাম্মদ শফিউল হক। তিনি বলেন, সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যরা ঊর্ধ্বতন নেতৃত্বের প্রতি আস্থা, পারষ্পারিক বিশ্বাস, সহমর্মিতা, ভ্রাতৃত্ববোধ এবং সর্বোপরি শৃংখলা বজায় রেখে নিজ নিজ কর্তব্য পালন করুন।

আজ রবিবার নবগঠিত সিলেট সেনানিবাসে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সেনাপ্রধান এসব কথা বলেন।

আইএসপিআর জানায়, নবগঠিত সিলেট সেনানিবাসকে পূর্ণাঙ্গ সেনানিবাস হিসেবে প্রতিষ্ঠার আরেকটি ধাপ হিসেবে রবিবার সিলেটে ১৭ পদাতিক ডিভিশনের অধীনস্থ পাঁচটি ইউনিটের পতাকা উত্তোলন করেন সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আবু বেলাল মোহাম্মদ শফিউল হক এবং উচ্চপদস্থ সামরিক কর্মকর্তাবৃন্দ।

পাচঁটি ইউনিটের মধ্যে ৬৪ ইষ্ট বেঙ্গল সিলেট অঞ্চল রেজিমেন্টের পতাকা সেনা প্রধান নিজেই, ৪০ বাংলাদেশ ইনফ্যান্ট্রি রেজিমেন্টের পতাকা ১৭ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি ও সিলেট এরিয়া কমান্ডার মেজর জেনারেল এস এম শামিম উজ জামান, ১৫৫ ফিল্ড ওয়ার্কশপ কোম্পানির পতাকা পাসপোর্ট অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো: মাসুদ রেজওয়ান, ১২৫ ব্রিগেড সিগনাল কোম্পানির পতাকা অর্ডন্যান্স ফ্যাক্টরি কমান্ডেন্ট মেজর জেনারেল শেখ মামুন খালেদ এবং ১৭ ইন্ডিপেন্ডেন্ট এ্যামুনিশন প্লাটুন (আইএপি) এর পতাকা সেনাসদরের মাস্টার জেনারেল অব অর্ডন্যান্স (এমজিও) মেজর জেনারেল মো: আবু সাঈদ সিদ্দিক উত্তোলন করেন।

এরা আগে সকাল ১১টায় সেনাবাহিনী প্রধান অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছালে ১৭ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি ও সিলেট এরিয়া কমান্ডার তাঁকে অভ্যর্থনা জানান। অতঃপর প্যারেড কমান্ডার মেজর তামজীদ এর নেতৃত্বে সেনাবাহিনীর একটি দল কুচকাওয়াজ প্রদর্শন করে এবং সেনাবাহিনী প্রধানকে সালাম প্রদান করে।

১৭ পদাতিক ডিভিশনের পাঁচটি নবগঠিত ইউনিটের যাত্রার মাধ্যমে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর উন্নয়ন রূপকল্প ফোর্সেস গোল-২০৩০ এর বাস্তবায়নের পথে আরেকটি মাইলফলক সংযোজিত হলো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *